অনলাইনে হবে ইঞ্জিনিয়ারিং অলিম্পিয়াড

জেনারেশন রিপোর্ট

ইঞ্জিনিয়ারিং অলিম্পিয়াড আয়োজন করতে যাচ্ছে শিক্ষা বিষয়ক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ার্স’। সারাদেশের সব বিশ্ববিদ্যালয়ের ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ এবং পলিটেকনিক ইনস্টিটিউশনের শিক্ষার্থীদের নিয়ে অনলাইনে অনুষ্ঠিত হবে এ অলিম্পিয়াড।

শুক্রবার (৯ জুলাই) সংগঠনটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত হয়। ভার্চুয়াল সভায় ইঞ্জিনিয়ারিং অলিম্পিয়াডের সিদ্ধান্ত হয়। সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা নাজিম সরকার বলেন, শিগগিরই ইঞ্জিনিয়ারিং অলিম্পিয়াডের তারিখ ও অংশগ্রহণের নিয়ম ঘোষণা করা হবে।

গবেষণা ভিত্তিক পড়াশোনার প্রক্রিয়া ও আন্তর্জাতিক জার্নালে গবেষণাপত্র প্রকাশের প্রস্তুতি কীভাবে নিতে হবে সে বিষয়ে স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ার্স-এর এবারের সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ার্সের ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন ‘ইঞ্জিনিয়ার্স আই’ ‘ক্রিয়েটিভ পোস্টার প্রেজেন্টেশন ২০২১ ফর ইঞ্জিনিয়ার্স’ শীর্ষক প্রতিযোগিতার আয়োজন করতে যাচ্ছে বলেও জানানো হয়।

সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা নাজিম সরকার বলেন, তরুণ প্রকৌশলীদের সৃজনশীলতার পাশাপাশি গবেষণা ভিত্তিক চর্চা প্রয়োজন। সেই লক্ষ্যেই আমরা গবেষণার দিকটাকে গুরুত্ব দিচ্ছি। পাশাপাশি প্রকৌশলীদের কম্পিটিটিভ দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য ইঞ্জিনিয়ারিং অলিম্পিয়াডের আয়োজন করতে যাচ্ছি। করোনা পরিস্থিতিতে সংগঠনের সব কার্যক্রম অনলাইনে হচ্ছে বলে জানান তিনি।

স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ার্সের মাসিক সভায় উপস্থিত ছিলেন প্রতিষ্ঠাতা, সহ-প্রতিষ্ঠাতাসহ বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস অ্যাম্বাসেডর, টিম লিডার ও সদস্যরা। সভা সঞ্চালনা করেন সহপ্রতিষ্ঠাতা হাসান মাহমুদ।