১০ বছরেও অসমাপ্ত জবির একমাত্র ছাত্রী হল নির্মাণের কাজ

জবির একমাত্র ছাত্রী হল
জবির একমাত্র ছাত্রী হল। ছবি : সংগৃহীত

পঞ্চম মেয়াদেও শেষ হয়নি জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) একমাত্র ছাত্রী হল বেগম ফজিলাতুন্নেসা মুজিব হলের নির্মাণকাজ। কাজ সম্পূর্ণ ও হলের কার্যক্রম শুরু করতে প্রয়োজন আরও ছয় মাস থেকে এক বছর।

এ বিষয়ে প্রকল্প পরিচালক ওয়াহিদ কনস্ট্রাকশন লিমিটেডের সাব-অ্যাসিস্ট্যান্ট ইঞ্জিনিয়ার শাহাদাত হোসেন বলেন, ‘আমাদের কনস্ট্রাকশনের কাজ প্রায় শেষ। প্রশাসন চাইলে আমরা আমাদের কাজ বুঝিয়ে দেব।’

সাব-স্টেশনের দায়িত্বে থাকা ব্যক্তি বলেন, নির্মাণকাজ শেষের দিকে। রোড কাটিংয়ের পারমিশন পেলে ফায়ার হাইড্রেন্টের বাকি কাজ করা হবে।

লিফটের দায়িত্বে থাকা ব্যক্তি জানান, এখন লিফট বসানোর কাজ চলছে। যন্ত্রপাতি আনা হলে কাজ শেষ করতে ছয় মাস লেগে যাবে।

‘কবে নাগাদ হলের কাজ সম্পূর্ণ শেষ হতে পারে আর হলের কার্যক্রম কবে শুরু হবে’-এমন প্রশ্নের জবাবে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী ওহিদুজ্জামান বলেন, ‘কাজ তো প্রায়ই শেষ। এতদিন লাগার কথা না। আমি প্রকল্প পরিচালকের সঙ্গে কথা বলে খবর নেব। দ্রুত যেন কাজটি সম্পূর্ণ হয়, সে ব্যাপারে বলব।’

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, ২০১১ সালের জানুয়ারি মাসে জবির ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হল প্রকল্পের কাজ শুরু হয়।

এ প্রকল্পের প্রথম দফায় মেয়াদ ছিল ২০১১ সালের জানুয়ারি থেকে ২০১৩ সালের জুন পর্যন্ত। দ্বিতীয় মেয়াদ ২০১৩ সালের জুন থেকে ২০১৬ সালের জুন।

তৃতীয় দফায় ২০১৬ সালের জুন থেকে ২০১৮ সালের জুন পর্যন্ত বাড়ানো হয় মেয়াদ। সর্বশেষ ২০১৮ সালের জুন থেকে ২০১৯ সালের জুন পর্যন্ত মেয়াদ বাড়ানো হয়েছিল।

এভাবে দফায় দফায় মেয়াদ বৃদ্ধি পেলেও ১০ বছরেও সম্পন্ন হয়নি বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলের নির্মাণকাজ।